স্ত্রীর সঙ্গে ভাইরাল অভিনেতা আহমেদ শরীফের ছবি

আহমেদ শরীফ। ঢাকাই সিনেমায় দাপটের স'ঙ্গে অ'ভিনয় করেছেন দীর্ঘদিন। ছিলেন হল মালিক। সেখান থেকে জড়িয়ে পড়েন সিনেমা'র প্রযোজনা ও অ'ভিনয়ে।

প্রায় আট' শতাধিক বাংলা চলচিত্রে অ'ভিনয় করেছেন তিনি। খলনায়ক হিসেবে সফল হলেও অনেক চলচ্চিত্রে ভিন্ন চরিত্রেও অ'ভিনয় করে মুন্সিয়ানা দেখিয়েছেন। উপহার দিয়েছেন অসংখ্য সুপার হিট ছবি।

বর্তমানে এ অ'ভিনেতা যুক্তরাষ্ট্রের নিউইর্য়কে স্থায়ীভাবে বসবাস করছেন। মাঝেমধ্যেই তার দেখা মেলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে। কখনো একা কখনো বা স্ত্রীকে নিয়ে হাজির হন তিনি।

তেমনি দুটি ছবি পোস্ট করেছিলেন ম'ঙ্গলবার (৩০ মা'র্চ)। সে ছবি দুটো ভাইরাল হয়েছে ফেসবুকে চলচ্চিত্রের বিভিন্ন গ্রুপে। সেখানে আহমেদ শরীফকে দেখা গেছে মাথায় গু'চ্চির টুপি পরা আর তার স্ত্রী মেহরুন আহমেদ ক্যামেরাবন্দী হয়েছেন লাল টুকটুক শাড়িতে।

ছবি দুটো পোস্ট করে আহমেদ শরীফ লিখেছেন, ‘আমা'র সহধ'র্মিণী মেহরুন আহমেদ, যার প্রতি কৃতজ্ঞতার শেষ নেই।’

ছবি দুটো দেখে আপ্লুত বাংলা সিনেমাপ্রেমীরা। অনেকে দুজনের জন্য সুস্থতার প্রার্থনা জানাচ্ছেন। অনেকে আবার আহমেদ শরীফের অ'ভিনয়কে মিস করেন বলেও মন্তব্য করেছেন।

প্রস'ঙ্গত, ১৯৪৩ সালের ১৩ আগস্ট কুষ্টিয়া জে'লার বানিয়াপাড়ায় জন্মগ্রহণ করেন আহমেদ শরীফ। তিনি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পড়াশোনা শেষ করেছেন।

তার অ'ভিনীত প্রথম সিনেমা ‘অরুণোদয়ের অ'গ্নিসাক্ষী’। সুভাষ দত্ত পরিচালিত এ ছবিতে নায়ক চরিত্রে অ'ভিনয় করেন আহমেদ শরীফ। তবে খলনায়ক হিসেবে ১৯৭৬ সালে তিনি প্রথম অ'ভিনয় করেন দেলোয়ার জাহান ঝন্টুর পরিচালনায় ‘ব'ন্দুক’ ছবিতে। এ ছবিটি সুপারডুপার হিট হয়।

চলচ্চিত্রে অ'ভিনয়ের পাশাপাশি আহমেদ শরীফ টেলিভিশনের জন্য কিছু নাটক-টেলিফিল্মও নির্মাণ করেছেন। ২০০১ সালে প্রথম নির্মাণ করেন টেলিফিল্ম ‘ক্ষণিক বসন্ত’। ২০০৩ সালে বাংলাদেশ টেলিভিশনের জন্য তিনি নির্মাণ করেন নাটক ‘ফুল ফুটে ফুল ঝরে’। দীর্ঘ আট' বছর পর নাদের খানের প্রযোজনা ও রচনায় হাস্যরসাত্মক গল্পের এ নাটকের নাম ‘মাইরের ওপর ওষুধ নাই’।

ব্যক্তি জীবনে স্ত্রী মেহরুন আহমেদের স'ঙ্গে সুখের দাম্পত্যে এক কন্যার জনক তিনি।

About admin

Check Also

গরিব ছেলের সাথে অভ্যাস আছে : প্রভা

ছোট পর্দার জনপ্রিয় অ'ভিনেত্রী সাদিয়া জাহান প্রভা। মডেলিংয়ের মাধ্যমে শোবিজ অ'ঙ্গনে পা রাখেন তিনি। পরে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *