‘গোপন বৈঠকের’ সময় জামায়াত ও হেফাজতের ৯ নেতাকর্মী আটক

লালমনিরহাটের কালীগঞ্জ উপজে'লায় গো'পন বৈঠকের সময় জামায়াত ও হেফাজতের ৯ জন নেতাকর্মীকে আট'ক করেছে পুলিশ। ম'ঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) রাতে উপজে'লার তুষভান্ডার ইউনিয়নের কাশিরাম মুন্সির বাজার এলাকার একটি বাড়ি থেকে তাদেরকে আট'ক করা হয়।

আট'ককৃতরা হলেন, উপজে'লার তুষভান্ডার ইউনিয়নের কাশিরাম গ্রামের মৃ'ত মকবুল হোসেনের ছেলে তুষভান্ডার ইউনিয়ন জামায়াতের আমীর মোজাম্মেল হক (৫৩), একই গ্রামের ইসমাইল হোসেনের ছেলে শাহীন মিয়া (৩৫), মৃ'ত উসমান আলীর ছেলে আবু বক্কর (৭০), মৃ'ত নজমুদ্দিনের ছেলে নজরুল ইসলাম (৫৭),

মৃ'ত ফয়জার উদ্দিনের ছেলে ফুয়াদ হোসেন (৪০), মৃ'ত নজরুল হকের ছেলে সাবু মিয়া (৫০), বৈরাতি গ্রামের ফজলে রহমানের ছেলে শহিদুল ইসলাম (৪০), একই গ্রামের ইমান আলীর ছেলে ফরিদুল ইসলাম (৩০) ও জামির বাড়ি গ্রামের বেলাল মোস্তফার ছেলে আবু সাঈদ (২৬)। পুলিশ জানান,

উপজে'লার কাশিরাম মুন্সির বাজার এলাকার আবু বক্কর নামে এক জামায়াতকর্মীর বাড়িতে গো'পন বৈঠক করছেন জামায়াতের বেশ কিছু নেতাকর্মী। এমন একটি গো'পন খবরে থানা পুলিশ ম'ঙ্গলবার রাতে ওই বাড়িতে অ'ভিযান চালায়। পুলিশের উপস্থিতি বুঝতে পেয়ে সবাই পালিয়ে গেলেও তুষভান্ডার ইউনিয়ন জামায়াতের আমীর মোজাম্মেল হকসহ ৯ জনকে আট'ক করে পুলিশ।

এ সময় তাদের কাছ থেকে কিছু জিহাদী বই, লিফলেট ও চাঁদা আ'দায়ের র'শিদ উ'দ্ধার করে পুলিশ। এ বি'ষয়ে কালীগঞ্জ থানা ভারপ্রা'প্ত কর্মক'র্তা (ওসি) আরজু মোঃ সাজ্জাদ হোসেন বলেন, ওই এলাকায় আবু বক্কর সিদ্দিকের বাড়িতে জামায়াতে ইসলামীর নেতা-কর্মীরা একটি গো'পন বৈঠকে বসেছে।

এমন গো'পন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ ওই বাড়িতে অ'ভিযান পরিচালনা করে তাদের আট'ক করা হয়েছে। পুলিশের ধারণা, তারা নাশ'কতামূলক কাজ করতে ওই বৈঠকে বসেছেন। জিজ্ঞাসাবাদ শেষে তাদের বিরু'দ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

About admin

Check Also

মক্কা-মদিনায় ১০ রাকাত তারাবির নির্দেশ

করো’নাভাইরাসের কারণে সারাবিশ্বেই এক ভ'য়াবহ সঙ্কট তৈরি হয়েছে। এর মধ্যেই বিভিন্ন দেশে আগামীকাল থেকে রোজা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *