রোজার আগেই দাম বাড়ল সরকারী পণ্যের

ঢাকা: এবার বাড়ানো হলো ট্রে'ডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশের (টিসিবি) পণ্যের দাম। ব'ঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে গত ১৭ মা'র্চ থেকে খোলাবাজারে প্রথম ধাপে পণ্য বিক্রি করে আসছে টিসিবি। রমজান উপলক্ষে বৃহস্পতিবার (১ এপ্রিল) থেকে এই কার্যক্রম কিছুটা বাড়িয়ে দ্বিতীয় ধাপ শুরু হচ্ছে।

দ্বিতীয় ধাপে পণ্যের দাম কিছুটা বাড়ানো হচ্ছে। এতে প্রতি কেজি তেলের দাম ১০ টাকা, ডাল ও চিনির দাম ৫ টাকা আগের থেকে বাড়ছে বলে জানা গেছে। নতুন করে প্রতি কেজি ছোলার দাম ৫৫ ও খেজুরের দাম ৮০ টাকা নির্ধারণ করেছে টিসিবি।

চলমান ৪০০ ট্রাকের মাধ্যমে ভোজ্যতেল, চিনি, মসুর ডাল ও পেঁয়াজ বিক্রি কার্যক্রম বাড়িয়ে রমজান উপলক্ষে দ্বিতীয় ধাপে ট্রাক সংখ্যা হবে ৫০০টি। এর মধ্যে রাজধানীতে পণ্য বিক্রি করবে ১০০ ট্রাক। তখন ট্রাকসেলে যুক্ত হবে ছোলা ও খেজুর। এসব পণ্য ১ এপ্রিল থেকে ই-কমা'র্সের মাধ্যমেও বিক্রি করবে সংস্থাটি। কেউ ট্রাক থেকে না কিনে ই-কমা'র্স অথবা সরাসরি বিক্রয় কেন্দ্রের মাধ্যমেও এসব পণ্য কিনতে পারবেন।

টিসিবি জানিয়েছে, নিত্যপণ্যের দাম বাড়তি থাকার কারণে পণ্য বিক্রি কার্যক্রম বাড়িয়েছে তারা। রমজানে যেসব পণ্যের বেশি চাহিদা থাকে, সেগু'লোর ১০ থেকে ১২ শতাংশ মজুদ রয়েছে তাদের কাছে। এ বছর রমজানে ২৬ হাজার ৫০০ টন ভোজ্যতেল, ১৮ হাজার টন চিনি, ১২ হাজার টন মসুর ডাল, ৮ হাজার টন ছোলা, ৬ হাজার টন পেঁয়াজ বিক্রি করবে বলেও জানিয়েছে সংস্থাটি।

টিসিবি জানিয়েছে, ১ এপ্রিল থেকে ট্রাকসেলে একজন ক্রেতা দিনে ৫৫ টাকা কেজি দরে সর্বোচ্চ চার কেজি চিনি, ৫৫ টাকা কেজি দরে দুই কেজি মসুর ডাল, ১০০ টাকা দরে পাঁচ লিটার সয়াবিন তেল এবং ২০ টাকা দরে পাঁচ কেজি পেঁয়াজ কিনতে পারবেন। এছাড়া রমজান উপলক্ষে দুই কেজি ছোলা ৫৫ টাকা দরে এবং এক কেজি খেজুর ৮০ টাকা দরে পাবেন।

About admin

Check Also

খেলতে যাই

খেলতে যাই

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *